ইউক্রেনে রুশ সেনাদের ধর্ষণের শিকার আবালবৃদ্ধবণিতা, ১ বছরের ছেলে শিশুর মৃত্যু

0
172
ইউক্রেনে নয় মাস বয়সী কন্যা শিশুকেও ধর্ষণ করতে ছাড়েনি বর্বর রুশ সেনারা। এছাড়া দুই বছর বয়সী এক কন্যাশিশু যন্ত্রণায় কাতড়াচ্ছে দুই রুশ সেনার ধর্ষণের শিকার হয়ে। তারা ১০ বছর বয়সী দুই বালককেও ধর্ষণ করেছে। ৬৭ ও ৭৮ বছর বয়সী দুই বৃদ্ধকেও ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।
ইউক্রেনে নয় মাস বয়সী কন্যা শিশুকেও ধর্ষণ করতে ছাড়েনি বর্বর রুশ সেনারা। এছাড়া দুই বছর বয়সী এক কন্যাশিশু যন্ত্রণায় কাতড়াচ্ছে দুই রুশ সেনার ধর্ষণের শিকার হয়ে। তারা ১০ বছর বয়সী দুই বালককেও ধর্ষণ করেছে। ৬৭ ও ৭৮ বছর বয়সী দুই বৃদ্ধকেও ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।
Spread the love

যুদ্ধের ভয়াবহতা কতটা বীভৎস হতে পারে তা দেখিয়ে দিলো ইউক্রেনে যুদ্ধ চাপিয়ে দিয়ে বিশ্বজুড়ে নিন্দিত রুশ রাষ্ট্রনায়ক পুতিনের দেশের সেনারা। যুদ্ধবিধ্বস্ত ইউক্রেনে দুই রুশ সেনা মিলে মাত্র এক বছর বয়সী এক ছেলে শিশুকে ধর্ষণ করে মেরে ফেলেছে। সম্প্রতি এমন ভয়ংকর দাবিই তোলা হয়েছে ইউক্রেনের পক্ষ থেকে।

ঘটনার এখানেই শেষ নয়। যুদ্ধের সবচেয়ে ন্যাক্কারজনক হাতিয়ার ধর্ষণকে যেভাবে ব্যবহার করছে রুশ সেনারা তার নিন্দা জানানোর ভাষা মনে হয় না মানবসমাজে আছে।

ইউক্রেন দাবি করেছে, দেশটিতে মাত্র নয় মাস বয়সী কন্যা শিশুকেও ধর্ষণ করতে ছাড়েনি বর্বর রুশ সেনারা। এছাড়া দুই বছর বয়সী এক কন্যাশিশু যন্ত্রণায় কাতড়াচ্ছে দুই রুশ সেনার ধর্ষণের শিকার হয়ে। সৌভাগ্যক্রমে বেঁচে গেছে ছোট্ট সেই শিশুটি।

শুধু তাই নয়, নয় বছর বয়সী জমজ তিন বোনকে তাদের মায়ের সামনেই ধর্ষণ করে রক্তাক্ত করে দিয়েছে রুশ সেনারা। তারা ১০ বছর বয়সী দুই বালককেও ধর্ষণ করেছে। অবিশ্বাস্য শোনালেও, ৬৭ ও ৭৮ বছর বয়সী দুই বৃদ্ধ পুরুষকেও ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে রুশ সেনাদের বিরুদ্ধে।

ইউক্রেনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এক টুইটার বার্তায় জানিয়েছে, ইউক্রেনে মাত্র দুই দিনে ৬০টিরও বেশি ধর্ষণের ঘটনা ঘটিয়েছে রুশ সেনারা।

বৃহস্পতিবার, ১৯ মে রাতে ডিফেন্স অব ইউক্রেন (ইউক্রেন গভার্নমেন্ট অর্গানাইজেশন) নামের টুইটার অ্যাকাউন্টে বলা হয়েছে, আজ (বৃহস্পতিবার) মাত্র এক ঘন্টার মধ্যে খারকিভের সদ্য মুক্ত হওয়া গ্রামগুলোতে দখলদাররা (রুশ সেনারা) আট শিশুসহ দশটি ধর্ষণের ঘটনা ঘটিয়েছে বলে রিপোর্ট পাওয়া গেছে। এছাড়া গতকাল (বুধবার) ৫৬টি ধর্ষণের রিপোর্ট পাওয়া গেছে।