Logo
শনিবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২০ | ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

রোববার দুবাই যাওয়ার কথা ছিল গোল্ডেন মনিরের

প্রকাশের সময়: ৬:৩১ অপরাহ্ণ - শনিবার | নভেম্বর ২১, ২০২০

তৃতীয় মাত্রা

মনির হোসেন ওরফে গোল্ডেন মনিরের রোববার (২২ নভেম্বর) দুবাই যাওয়ার ফ্লাইট ঠিক ছিল।  কিন্তু আগের দিন শনিবার অবৈধ অস্ত্র, মাদক ও বিদেশি মুদ্রা রাখার অভিযোগে র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার হলেন তিনি। একটি গোয়েন্দা সংস্থার গোপন তথ্য পেয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

মেরুল বাড্ডার ডিআইটি প্রজেক্টে মনিরের বাসায় শুক্রবার রাতে অভিযানে যায় র‌্যাব। ছয়তলা বাড়িতে র‍্যাব-৩ এর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসুর নেতৃত্বে শুক্রবার মধ্যরাতে শুরু হয়ে শনিবার সকাল পর্যন্ত অভিযান চলে। অভিযানে মনিরের বাড়ি থেকে নগদ ১ কোটি ৯ লাখ টাকা, ৪ লিটার মদ, ৮ কেজি স্বর্ণ, একটি বিদেশি পিস্তল, কয়েক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। অস্ত্র ও মদের পাশাপাশি ৯ লাখ টাকা মূল্যের ১০টি দেশের বৈদেশিক মুদ্রা জব্দ করেছে র‌্যাব।

র‌্যাব কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, মনিরের বাড়িতে পাঁচটি গাড়ি পাওয়া গেছে, যার মধ্যে তিনটি গাড়ির বৈধ কাগজপত্র নেই বলে সেগুলো জব্দ করা হয়েছে। মনিরের ১ হাজার ৫০ কোটি টাকার উপর সম্পদের তথ্য পাওয়ার কথাও জানিয়েছে র‌্যাব।

এদিকে মনিরের বড় ছেলে মো. রাফি হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, আমার বাবার বিরুদ্ধে যেসব অভিযোগ দেয়া হচ্ছে সব মিথ্যা ও ভিত্তিহীন। তিনি একজন স্বনামধন্য ব্যবসায়ী।  রোববার বাবার দুবাই যাওয়ার ফ্লাইট ছিল। চিকিৎসার জন্য প্রায়ই বাবা দুবাই যান। এর আগেই র‍্যাব তাকে গ্রেফতার করে।

রাফি বলেন, আমার বাবা নির্দোষ। তিনি কোনো রাজনৈতিক দলের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন না। আমরা আইনগতভাবে সব মোকাবেলা করব। আমরা কোর্টে যাব। সেখানেই প্রমাণ হবে বাবা দোষী কিনা। সম্পূর্ণ ভুল বোঝাবুঝির মাধ্যমেই তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে দাবি করেন ছেলে রাফি।

Read previous post:
এবার করোনায় আক্রান্ত ট্রাম্প জুনিয়র

তৃতীয় মাত্রা করোনা ভাইরাসে এবার আক্রান্ত হয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বড় ছেলে ডোনাল্ড ট্রাম্প জুনিয়র। শক্রবার তার ব্যক্তিগত মুখপাত্র...

Close

উপরে