• Thursday, 09 February 2023
কলাগাছিয়া আওয়ামীলীগের কাউন্সিলকে ঘিরে ত্যাগীরা একাট্রা

কলাগাছিয়া আওয়ামীলীগের কাউন্সিলকে ঘিরে ত্যাগীরা একাট্রা

স্টাফ রিপোর্টার:
আসন্ন কলাগাছিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের কমিটি গঠন নিয়ে ঘুরে দাড়াতে শুরু করছে ত্যাগী নেতারা। একশ্রেণীর হাইব্রীড ও সুবিধাবাদীদের ঠেকাতে ত্যাগী নেতা-কর্মীরা একাট্রা হচ্ছে বলে একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র জানিয়েছে। তাদের মতে,জামায়াত-বিএনপি’র দোসররা তাদের এজেন্ডা বাস্তবায়ন করতে আওয়ামীলীগের ভীত দুর্বল করতে নানা কৌশল অবলম্বন করছে। এ ব্যাপারে কলাগাছিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক একেএম ইব্রাহিম কাশেম জানান,আমাদের দলীয় গঠনতন্ত্র অনুযায়ী ৪০ এর ক ধারায় পরিস্কারভাবে বর্ণিত রয়েছে ইউনিয়ন কাউন্সিলে সহযোগী সংগঠনের কোন ব্যক্তি মূল সংগঠনের (আওয়ামীলীগের)কাউন্সিলর হতে পারেনা। সুতরাং  ৪০ এর ‘ক’ ধারার নিয়ম ভঙ্গ করে কলাগাছিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক নেতা-কর্মীদেরকে মূল দলে পদায়নের কোন সম্ভাবনা নেই। একই ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি রাজনৈতিক মাঠের লড়াকু সৈনিক শাহিন তাহেরী সিনহা অত্যন্ত ক্ষোভের সাথে বলেন,আমরা প্রবীণ এবং ত্যাগী নেতাদের অবমূল্যায়ন করে রাজনীতি করতে চাইনা।

সিনিয়ররা থাকবে সিনিয়রদের সম্মান নিয়ে আমরা থাকবো তাদের পিছনে পিছনে এতে আমাদের সম্মান আরো বাড়বে। টাকার কাছে বিক্রি হয়ে যারা নীতি আদর্শকে জবাই করতে চান আমরা তাদেরকে ধিক্কার জানাই। তারা রাজনীতিকে ব্যবসা আর পদ’কে পন্য মনে করেই কিনতে এসেছেন। আওয়ামীলীগের নেতা-কর্মীরা রাজনীতি দিয়ে ব্যবসা করেনা। সহ-সভাপতি মোঃ সোহেল মিয়া বলেন, যারা দুঃসময়ে রাজপথে ছিল তাদেরকে
মূল্যায়ন করতে হবে। টাকার বিনিময়ে নেতার যোগ্যতা বিবেচনা করলে চলবেনা। আন্দোলন-সংগ্রামে যারা জীবনের পরোয়া না করে ফ্রন্টলাইনে ছিল তাদেরকে পদের মাধ্যমে কাজের স্বীকৃতি দেয়া হোক। কলাগাছিয়া ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি রুহুল আমিন বলেন,রাজনীতি নিয়ে এখন অনেকেই ব্যবসা শুরু করে দিয়েছে।

পদ নাকি টাকায় বিক্রি হয়। যারা আন্দোলন সংগ্রামে বুলেট বুকে নিয়ে রাজপথে নিঃস্বার্থভাবে কাজ করে দলকে বাঁিচয়ে রেখেছে আজকে তাদেরকে নিক্ষিপ্ত করা হচ্ছে এটা খুবই বেমানান। তারা আজকের দিনে এমন অপমানিত লাঞ্চিত বঞ্চিত হওয়ার জন্য জীবনের মায়া ত্যাগ করে সে সময় রাজপথে আন্দোলন করেননি। উড়ে এসে জুড়ে পদ পেয়ে গেলে আওয়ামীলীগের রাজনীতি সস্তা পণ্যের মতোই মনে করবে মানুষ। অনেকেই আজকে নতুন নতুন করে ফেনা তুলে ফেলছে কিন্তু বাবাকে অসম্মান করে যদি সন্তানকে সম্মান দেখানো হয় তাহলে সেই রাজনীতির পরিণাম কোনমতেই
সুফল বয়ে আনবে বলে মনে হয়না।

comment / reply_from