• Thursday, 09 February 2023

ইউক্রেন যুদ্ধ শুরুর পরেও ইরান রাশিয়াকে অস্ত্র দিয়েছে: গার্ডিয়ান

ইউক্রেন যুদ্ধ শুরুর পরেও ইরান রাশিয়াকে অস্ত্র দিয়েছে: গার্ডিয়ান

ফেব্রুয়ারিতে ইউক্রেনে আক্রমণের পরে ইরানের তৈরি ড্রোন রাশিয়ায় সরবরাহ করা হয়েছিলো ও ভবিষ্যতে অস্ত্রের আরো চালান প্রত্যাশিত। দ্য গার্ডিয়ান এর এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী গণমাধ্যমটিকে প্রমাণ দিয়েছে যে, ইউক্রেনে আক্রমণের পরে তেহরান তার মিত্রদের কাছে অস্ত্র সরবরাহ করেছিলো। যার ফলে, গুরুতর সরঞ্জামের ক্ষতি সত্ত্বেও রাশিয়ান বাহিনী ইউক্রেনের গুরুত্বপূর্ণ অবকাঠামো ধ্বংস করার ক্ষমতা পায়।

এদিকে, পশ্চিমা কর্মকর্তারা সিএনএনকে বলেছেন, ইরান রাশিয়ায় মোট ৪৫০টি ড্রোন পাঠিয়েছে ও ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রসহ আরও এক হাজার ইউনিট অস্ত্র পাঠাবে।

ইউক্রেনের একটি সামরিক সূত্র জানিয়েছে যে, ইউক্রেনীয় সামরিক গোয়েন্দারা আটক ড্রোনগুলো খুলে সেগুলোর উৎস ও উৎপাদনের তারিখ আবিষ্কার করেছেন। যার মধ্যে মোহাজের-৬ স্পাই ড্রোনও ছিল ও সেটি ফেব্রুয়ারির আক্রমণের পর ইরানে তৈরি করা হয়েছিলো।

ওই সূত্রটি বলেছে, ‘আমরা মনে করি যে রাশিয়ান বিশেষজ্ঞরা এতে জড়িত ছিলেন, তবে এটি কেবল একটি তত্ত্ব। হয় ইরানিরা রাশিয়ায় গিয়েছিলো অথবা তাদের রাশিয়ান বিশেষজ্ঞরা সেখানে কাজ করছে।’

ফরেন পলিসি রিসার্চ ইনস্টিটিউটের সামরিক বিশেষজ্ঞ রব লি বলেছেন, ‘রাশিয়ানরা আরো কার্যকরভাবে বায়বীয় যুদ্ধাস্ত্র ব্যবহার করছে। সম্প্রতি কিছু ইরানি, কিছু রাশিয়ান যদি ইরানের কাছ থেকে ভূমি থেকে আকাশে নিক্ষেপযোগ্য ক্ষেপণাস্ত্র পায়, তবে তাও তাৎপর্যপূর্ণ হতে পারে।’

তিনি আরও বলেছেন, ‘এর অনেকটাই ইউক্রেন ও রাশিয়ার জন্য বাহ্যিক সমর্থনের স্তরের ভবিষ্যদ্বাণী করার চেষ্টা করে এবং এটি কঠিন।’

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি সতর্ক করেছেন যে দেশটির জ্বালানি অবকাঠামোর ৩০ শতাংশেরও বেশি নিষ্ক্রিয় করতে গত অক্টোবর থেকে রাশিয়া ইরানের অস্ত্র ব্যবহার করছে।

গত অক্টোবরে ইরান রাশিয়াকে অস্ত্র সরবরাহ করার কথা অস্বীকার করেছিলো। কিন্তু, গত সপ্তাহে ইরান প্রথমবারের মতো স্বীকার করে যে তারা রাশিয়াকে ড্রোন দিয়েছে। তবে সেগুলো ইউক্রেনে যুদ্ধ শুরু হওয়ার আগে পাঠানো হয়েছিলো। -সূত্র : আরব নিউজ

comment / reply_from

related_post