• Tuesday, 07 February 2023
আ.লীগের সাতে  নির্বাচন নিয়ে কথা হয়েছে ; চুন্নু

আ.লীগের সাতে নির্বাচন নিয়ে কথা হয়েছে ; চুন্নু

ডেক্স রির্পোট.

জাপা মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু গতকাল রবিবার বলেন, ‘উপনির্বাচন নিয়ে আওয়ামী লীগের সঙ্গে কিছু কথাবার্তা হয়েছে, আরো হবে। প্রাথমিক আলোচনায় দুটি ইঙ্গিত আমরা পেয়েছি। প্রথমটি হলো—প্রত্যেকটি আসন উন্মুক্ত রাখা হতে পারে; তাতে আওয়ামী লীগ ও জাপাসহ যে কোনো দলের মনোনীত প্রার্থী অংশ নিতে পারেন। দ্বিতীয়টি হচ্ছে—সংসদে বিরোধীদলের শক্তি বৃদ্ধির লক্ষ্যে আওয়ামী লীগ নৌকা প্রতীকে প্রার্থী মনোনয়ন নাও দিতে পারে; সেক্ষেত্রে জাপার প্রার্থীসহ প্রতিদ্বন্দ্বী অন্য যে কেউ জয়ী হতে পারেন।’

এদিকে, সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা ও জাপার প্রধান পৃষ্ঠপোষক রওশন এরশাদের সঙ্গে গতকাল তার গুলশানের বাসায় বৈঠক করেছেন জাপা চেয়ারম্যান জি এম কাদের এবং মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু। বৈঠকে আসন্ন উপনির্বাচন, আগামী ১ জানুয়ারি দলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী এবং দলে চলমান বিবাদ নিয়ে তাদের মধ্যে আলোচনা হয়েছে। বৈঠকের বিষয়ে জাপা মহাসচিব চুন্নু ইত্তেফাককে বলেন, ‘অত্যন্ত সৌহার্দপূর্ণ আলোচনা হয়েছে। দলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে আমরা তাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছি। তিনি আমন্ত্রণ গ্রহণ করেছেন। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে ১ জানুয়ারি রাজধানীর কাকরাইলে জাপার কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে আয়োজিত আলোচনাসভায় রওশন এরশাদ উপস্থিত থাকবেন।’

দলীয় সিদ্ধান্ত গ্রহণে গত ১ নভেম্বর থেকে আদালতের অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞার মধ্যে থাকা জাপা চেয়ারম্যান জি এম কাদেরও প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আলোচনাসভায় উপস্থিত থাকবেন। এর ফলে, ২০১৯ সালে এরশাদের মৃত্যুর পর দলীয় কোনো অনুষ্ঠানে প্রথমবারের মতো একমঞ্চে উপস্থিত থাকছেন রওশন ও জি এম কাদের। এর মধ্যে অবশ্য থাইল্যান্ডের ব্যাংককে চিকিত্সা শেষে গত ২৭ নভেম্বর রওশন এরশাদ দেশে ফেরার পর তার সঙ্গে গুলশানের ওয়েস্টিন হোটেলে গিয়ে বৈঠক করেছেন জি এম কাদের। এরপর রওশনের সঙ্গে গণভবনে গিয়ে তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গেও বৈঠক করেছেন। চুন্নু জানান, প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে জি এম কাদের উপস্থিত থাকলেও আদালতের প্রতি সম্মান জানিয়ে তিনি হয়তো ঐ দিন বক্তব্য রাখবেন না। উল্লেখ্য, নিষেধাজ্ঞা বাতিল চেয়ে জি এম কাদেরের করা আবেদনের ওপর আগামী ৯ জানুয়ারি আদালতে শুনানির জন্য দিন ধার্য রয়েছে।

ইসি জানিয়েছে, পাঁচটি আসনে উপনির্বাচনের পর শূন্য হওয়া সংরক্ষিত আসনের তপশিল ঘোষণা করা হবে। বিএনপি দলীয় অপর সংসদ সদস্য হারুনুর রশীদ গত ২২ ডিসেম্বর পদত্যাগ করেছেন। তার আসনটিও শূন্য ঘোষণা করে ইতিমধ্যে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে সংসদ সচিবালয়। এই আসনটিতে উপনির্বাচনের জন্য নতুন করে তপশিল ঘোষণা করবে ইসি।

এর মধ্যে, জাপা থেকে বহিষ্কৃত জিয়াউল হক মৃধা ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের সাবেক এমপি। মৃধার করা মামলাতেই জি এম কাদেরের ওপর অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে আদালত। জাপা মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু বলেন, ‘উনি (মৃধা) তো দলের প্রাথমিক সদস্যও নন। উনি কীভাবে মনোনয়ন পাবেন!’

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনে ২০১৮ সালের নির্বাচনে জাপা মনোনীত প্রার্থী ছিলেন দলটির প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া। তিনি জিয়াউল হক মৃধার জামাতা। সে নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন না পেয়ে মৃধা স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়েছিলেন। এনিয়ে তখন মৃধা ও রেজাউলের সমর্থকরা পালটাপালটি বিক্ষোভও করেন। পরে নির্বাচনে সেখানে জয়ী হন বিএনপির উকিল আবদুস সাত্তার। জানা গেছে, এবারও এই আসনে মৃধা ও রেজাউলকে নিয়ে রওশন এরশাদ ও জি এম কাদের বলয়ের মধ্যে টানাপোড়েন চলছে।

 

comment / reply_from