হোমমেড ভায়াগ্রা তৈরির রেসিপি (ভিডিও)

244

অত্যাশ্চর্য এক ওষুদের নাম ভায়াগ্রা। করোনার টিকা বানিয়ে বিশ্বব্যাপী পরিচিতি পাওয়া মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিখ্যাত ওষুধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ফাইজার এই এক ভায়াগ্রা ওষুধ বিক্রি করেই কামিয়ে ফেলেছে বিলিয়ন বিলিয়ন ডলার।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মতো বাংলাদেশেও বিক্রি হয় ভায়াগ্রা। বিভিন্ন অনলাইন মেডিসিন শপে ৪ পিস ট্যাবলেটের একটি পাতার দাম রাখা হয় ২০০০ টাকা পর্যন্ত। সেই হিসেবে প্রতি পিস ভায়াগ্রার দাম পড়ে ৫০০ টাকার মতো। লোকলজ্জা, পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার ভয় কিংবা চড়া দামের কারণে যারা ভায়াগ্রা সেবন করতে চান না তারা কিন্তু ঘরে বসে খুব সহজেই এই ওষুদের বিকল্প তৈরি করতে পারেন।

ভায়াগ্রা ওষুধের ভেতর অ্যাফ্রোডিসিয়াক উপাদান যেমন- লাইকোপেন, সিট্রুলিন ইত্যাদি থাকে যা পুরুষের যৌন সক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। হাতের নাগালেই পাওয়া যায় এমন দুটি ফল যা থেকে খুব সহজেই অ্যাফ্রোডিসিয়াক উপাদান পেতে পারেন আপনি। একটি হলো তরমুজ এবং অন্যটি লেবু।

যেভাবে তৈরি করবেন বিকল্প ভায়াগ্রা :

শুরুতেই তরমুজের বিচি ছাড়িয়ে লাল অংশ ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিতে হবে। এরপর ব্লেন্ডার মেশিনে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিতে হবে।

লিটার খানেক তরমুজের রস হওয়ার পর তা একটি পাত্রে ঢালতে হবে। এরপর হাল্কা আঁচে ফোটাতে হবে। ফুটন্ত তরমুজের রসে একটি আস্ত লেবু চিপড়ে তার রস মেশাতে হবে। ভালো করে লেবুর রস মেশানোর পর হালকা আঁচে জ্বাল দিতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে, পাত্রের তলা যেন ধরে না যায়। মিশ্রণটি ক্রমাগত নাড়লে তলা ধরার ভয় থাকবে না।

জ্বালে জ্বালে মিশ্রণটির পরিমাণ অর্ধেকে নেমে এলে চুলা থেকে নামিয়ে ঠান্ডা করতে হবে। পুরোপুরি ঠান্ডা হওয়ার পর ছাঁকনি দিয়ে ছেকে একটি পরিষ্কার কাঁচের বোতলে ভরে ফ্রিজে রেখে দিতে হবে। ভুলেও স্বাদ বাড়ানোর জন্য চিনি, লবণ বা অন্য কোনো মশলা মেশানো যাবে না। সেক্ষেত্রে কার্যকর ফল পাওয়া যাবে না এই প্রাকৃতিক ভায়াগ্রা সেবন করে।

প্রতিদিন সকালে খালি পেটে এবং রাতে খাওয়ার আগে দুই চা-চামচ করে তরমুজ ও লেবুর রসের মিশ্রণটি খেতে হবে। শরীরের ওজন বেশি হলে ৩ থেকে ৪ চামচ পর্যন্ত খাওয়া যেতে পারে। এভাবে নিয়মিত একসপ্তাহ খেলেই এর কার্যকারিতা মিলবে। যেকোনো বয়সের মানুষই খেতে পারেন সম্পূর্ণ পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ামুক্ত এই হোমমেড ভায়াগ্রা।