হিজলায় ২১ জেলের কারাদণ্ড

68

মামুন তালুকদার, হিজলা থেকে : বরিশালের হিজলা উপজেলা মৎস্য অফিসের কম্বিং অপারেশনের চতুর্থ ধাপের প্রথম দিনে অবৈধ জাল অপসারণ কালে ২২জন জেলেকে আটকের পরে একুশজন জেলেকে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে এবং একজন জেলের বয়স কম হওয়ার কারণে মুচলেকা রেখে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

হিজলা উপজেলা মৎস্য অফিস সূত্রে জানা গিয়েছে, মৎস্য সম্পদ ধ্বংসকারী অবৈধ জাল (বেহন্দি, কারেন্ট, মশারি, চট জাল, পাই জাল ও টং ইত্যাদি জাল ) অপসারণের বিশেষ কম্বিং অপারেশনের চতুর্থ ধাপের প্রথম দিন ১৩ ফেব্রুয়ারি রবিবার, সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিসার এম,এম পারভেজ হিজলা নৌপুলিশ সাথে নিয়ে হিজলার মেঘনা নদীর বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে অবৈধ জাল, জাটকা মাছ সহ ২২ জেলেকে আটক করেন। এসময় অভিযানে উপস্থিত ছিলেন মৎস্য অফিসের ফিল্ড এসিস্ট্যান্ট মোঃ সাইদুর রহমান, ক্ষেত্র সহকারী প্রশান্ত কুমার রায়।

পরে জেলেদেরকে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট বকুল চন্দ্র কবিরাজ এর আদালতে হাজির করা হলে তিনি একুশজন জেলের প্রত্যেককে পনের দিন করে কারাদণ্ড প্রদান করেন। একজন জেলের বয়স কম প্রমাণিত হওয়ার কারণে মুচলেকা রেখে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। জব্দকৃত মাছ বিভিন্ন এতিমখানায় বিতরণ শেষে অবৈধ জাল গুলো আগুনে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়েছে।