সীতাকুণ্ডে বিস্ফোরণ নাশকতা কিনা খতিয়ে দেখা হবে : ড. হাছান

82
তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, সীতাকুণ্ডে বিএম কনটেইনার ডিপোতে বিস্ফোরণের ঘটনাটি নিছক দুর্ঘটনা নাকি নাশকতা তা খতিয়ে দেখা হবে।
তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, সীতাকুণ্ডে বিএম কনটেইনার ডিপোতে বিস্ফোরণের ঘটনাটি নিছক দুর্ঘটনা নাকি নাশকতা তা খতিয়ে দেখা হবে।

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, সীতাকুণ্ডে বিএম কনটেইনার ডিপোতে বিস্ফোরণের ঘটনাটি নিছক দুর্ঘটনা নাকি নাশকতা তা খতিয়ে দেখা হবে।

রোববার, ৫ জুন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ক্র‍্যাব) এর নব-নির্বাচিত কমিটির সঙ্গে মতবিনিময় সভায় আলোচনাকালে এমন মন্তব্য করেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী বলেন, তাদের (মালিকপক্ষ) সব কমপ্লায়েন্স ছিল কিনা সেটি অবশ্যই খতিয়ে দেখা হবে। তারা সব কমপ্লায়েন্স করে প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কিনা সেটি অবশ্যই খতিয়ে দেখা হবে। যদি তাদের কমপ্লায়েন্স না থাকে সেক্ষেত্রে কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে। কমপ্লায়েন্স থাকার পরও যদি এই ঘটনা ঘটে থাকে তাহলে দুর্ঘটনা নাকি নাশকতা তা তদন্তে বেরিয়ে আসবে।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, এত বড় একটি ঘটনা (ঘটেছে)। (সবকিছু) খতিয়ে দেখা হচ্ছে। এটি দুর্ঘটনা নাকি নাশকতা সেটিও খতিয়ে দেখা হবে। প্রধানমন্ত্রী (শেখ হাসিনা) নিজেই বিষয়টি পর্যবেক্ষণ করছেন। তিনি সবাইকে নির্দেশনা দিয়েছেন।

উল্লেখ্য, শনিবার ৪ জুন রাত সাড়ে ১০টার দিকে বিএম ডিপোর কনটেইনারের রাসায়নিক থেকে বিকট শব্দে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। প্রায় চার কিলোমিটার দূর থেকেও শোনা যায় সেই বিস্ফোরণের শব্দ। আশপাশের বাড়িঘরের জানালার কাঁচ ভেঙে যায়। এসময় কনটেইনার ডিপোতে আগুন ছড়িয়ে পড়ে।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ভয়াবহ এই দুর্ঘটনায় ৩৩ জন মারা গেছেন। নিহতদের মধ্যে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীও আছেন। ১০ জন পুলিশ সদস্য, ২১ জন ফায়ার সার্ভিস কর্মীসহ আহত হয়েছেন চার শতাধিক মানুষ। ধারণা করা হচ্ছে, হতাহতের সংখ্যা আরও বাড়বে।