মাদারীপুরের খেজুর গুড়ের হারানো ঐতিহ্য ফিরে পাওয়ার চেষ্টা

100

মাদারীপুর জেলা প্রতিনিধি : মাদারীপুরের খেজুর গুড়ের ঐতিহ্য ধীরেধীরে হারিয়ে যেতে বসেছিল। তবে আগের মতো খেজুর গুড়ের মান ও স্বাদ ঠিক রেখে খেজুর গুড় তৈরী করার চেষ্টা করে যাচ্ছে গাছিরা। এদিকে মাদারীপুর জেলায় খেজুর গাছের সংখ্যা ধীরেধীরে কমে যাওয়া কারণে খেজুর গুড়ের মূল উপাদান খেজুরের রসের সংকটে এর আসল স্বাদ ও মান ধরে রাখা অনেকটা কঠিন হয়ে পড়েছে। খেজুর গাছ কমে যাওয়ার কারণে খেজুর গাছ থেকে রস সংগ্রহ করে সেই গাছিদের সংখ্যা দিনদিন কমে যাচ্ছে। আর এই কারণে খেজুর গাছের কিছু মালিকরা তাদের খেজুর গাছ বিক্রি করতে বাধ্য হচ্ছেন।

এদিকে খেজুর গাছ কাটা গাছিরা অনেকটায় বেকার হয়ে গেছে, তারা অনেকে এখন অন্য পেশায় চলে যাচ্ছে। খেজুর গাছ না থাকলে খেজুর রস পাওয়া যায়না, যে রস পাওয়া যায় তা দিয়ে খেজুর গুড় বানান হয় তা মোট খেজুর গুড় বানানোর চাহিদার থেকে অনেকটাই কম। এতে দেখা দিয়েছে ভালো মানের খেজুরের গুড় বানানোর সমস্যা। তাই মাদারীপুরে আগে যা খেজুর গুড় পাওয়া যেত তা মোট পরিমানের অর্ধেক চিনি মিশ্রিত, এ খেজুর গুড় হয়েছিল সম্পূর্ণ ভেজাল। মাদারীপুর জেলা কৃষি স¤প্রসারণ অধিদফতরের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৫—১৬ অর্থবছরে ৫০ হেক্টর জমিতে ৬৪ হাজার ৮০০টি খেজুর গাছ লাগানো হয়েছিল।

১৯ হাজার ৭২৫টি গাছ থেকে ৫১৫ জন গাছি রস সংগ্রহ করত। ৬২৩ মেট্রিক টন খেজুর গুড়ের চাহিদার বিপরীতে উৎপাদন ছিল মোট ২৪০ মেট্রিক টন। ২০১৬—১৭, ২০১৭—১৮, ২০১৮—১৯, ২০১৯—২০, ২০২০—২১ অর্থবছরে খেজুর গুড়ের চাহিদা বাড়লেও এদিকে কমেছে গাছের সংখ্যা ও উৎপাদন। যা মাদারীপুরের সদর, শিবচর, রাজৈর, ডাসার ও কালকিনির উপজেলার অনেক গ্রামে খেজুর গাছ থাকলেও নেই প্রচুর পরিমানে, যার কারণে দেখা দিয়েছে খেজুর রসের অভাব।

মাদারীপুর শহরের পুরান কোর্ট এলাকায় প্রতি বছরই খেজুর গুড়ের বাজার বেশ জমে উঠতে দেখা যায়। এখান থেকে আশপাশের বিভিন্ন এলাকা থেকে অনেকে গুড় কিনতে আসেন। মৌসুমের শুরুর দিকে ২০০ টাকা থেকে ৪০০ টাকা দরে কেজিতে এই গুড় বিক্রি হয়। তবে বেশি দামের যে গুড় বিক্রি হয় সাধারণত এর মান ও স্বাদ বেশি ভালো। অথচ মাদারীপুর এক সময়ে ছিল খেজুর গুড়ের জন্য বিখ্যাত, তখন ছিল না খেজুর রসের সংকট।

স্থানীয় খেজুর গুড় বিক্রেতা বলেন, গাছিরা এখন ভেজাল ছাড়া খেজুর গুড় বানানোর চেষ্টা করে যাচ্ছি। এক সময়ে ছিল মাদারীপুরের খেজুর গুড়ের প্রচুর সুনাম, সে সুনাম আবারও ধরে রাখার চেষ্টা। ভেজাল মুক্ত হক মাদারীপুরের খেজুর গুড় এমনটি প্রত্যাশা মাদারীপুরবাসীদের।