ভোলাহাটে কর্মীদের হুমকিতে এনজিও এমডি’র আত্মহত্যা

301

ভোলাহাট(চাঁপাইনবাবগঞ্জ)প্রতিনিধিঃ ভোলাহাটে স্থানীয় এনজিও মাইডসের এমবি বেলাল উদ্দিন (৪৫) কীটনাশক পান করে আত্মহত্যা করেছেন। ১১ ফেব্রুয়ারি শুক্রবার ভোরে নিজ বাড়ী উপজেলার পঞ্চানন্দপুর গ্রামে কীটনাশক পান করেন।

বিষয়টি জানতে পেরে পরিবারের লোকজন দ্রুত ভোলাহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে সকাল ১০ টার দিকে দ্বায়িত্বরত এমবিএস ডাক্তার মোঃ হাসান আলি তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে ভোলাহাট থানার পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত মোঃ রেজওয়ানুল, এস আই মোঃ কামাল উদ্দিন, মোঃ আঃ সালাম স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে উপস্থিত হয়ে লাশের সুরতহাল রিপোর্ট করেন। পরে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জে মর্গে প্রেরণ করেন।

পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত মোঃ রেজওয়ানুল জানান, প্রাথমিক ভাবে সুরুতহাল রিপোর্ট তৈরি করা হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জ মর্গে পাঠানো হয়েছে। পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা করলে ময়নাতদন্তের পর আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এদিকে পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, বেলাল উদ্দিন স্থানিয় এনজিও মাইডসের এমডি ছিলেন। তাঁর কর্মচারী মোঃ এসরাইল, হেলাল, হাসান, কারিম, মাইনুল, আব্দুর রহমান ডাকু, মিজানসহ অন্যান্যরা এনজিও’র কোটি কোটি টাকা লুট করে নেয়। এ ব্যাপারে দীর্ঘদিনের অর্থ জটিলতায় স্থানীয় ভাবে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। তদন্ত কমিটি ১০ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার বিকেলে তদন্তে বসলে কর্মীদের টাকা লুটের বিষয়টি প্রমাণ পান তদন্ত কমিটি। এ সময় তদন্ত কমিটির সামনে টাকা লুটের সাথে জড়িতরা তাকে মার—পিটের চেষ্টা চালায়।এ হতাশায় কীটনাশক পানে আত্মহত্যা করেছেন বলে জানান।

এদিকে তদন্ত কমিটির দায়িত্বশীল বেশ কজনের সাথে কথা বললে নাম না প্রকাশ করার শর্তে জানান, ১০ ফেব্রুয়ারি বিকেলে তদন্ত চলাকালে বেলাল উদ্দিনকে টাকা লুটের সাথে জড়িতরা মারমুখী হয়। এছাড়া টাকা লুট করেছেন কর্মীরা এটা প্রামাণ মিলেছে। এঘটনায় বেলাল উদ্দিনের স্ত্রী মোসাঃসেকিনা বাদি হয়ে থানায় আইনগত সহায়তা চেয়েছেন।