ফেনীতে জন্মাষ্টমী উপলক্ষে সমাবেশ ও মঙ্গল শোভাযাত্রা

77
ফেনীতে জন্মাষ্টমী উপলক্ষে সমাবেশ ও মঙ্গল শোভাযাত্রা
ফেনীতে জন্মাষ্টমী উপলক্ষে সমাবেশ ও মঙ্গল শোভাযাত্রা

ফেনী প্রতিনিধি : পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জন্মাষ্টমী উপলক্ষে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ফেনী জেলা শাখার আয়োজনে দিনব্যাপী নানা কর্মসূচি পালিত হয়েছে। এর মধ্যে শুক্রবার (১৯ আগস্ট) বিকেলে ফেনীর জয়কালী মন্দির প্রাঙ্গণে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ফেনী জেলা প্রশাসক আবু সেলিম মাহমুদ-উল হাসান।

জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শুসেন চন্দ্র শীলের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ফেনীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নাদিয়া ফারজানা, ফেনী পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী, কেন্দ্রীয় পূজা পরিষদের সভাপতি জিপি প্রিয়রঞ্জন দত্ত।

জেলা পূজা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অনিল নাথের সঞ্চালনায় জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি শুকদেব নাথ, সাধারণ সম্পাদক লিটন সাহা, জয়কালী মন্দির কমিটির সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার তপন দাস।

সমাবেশ শেষে বিশ্বশান্তি দেশ ও জাতির মঙ্গল কামনায় ফিতা কেটে মঙ্গল শোভাযাত্রা উদ্বোধন করেন অতিথিবৃন্দ। শোভাযাত্রাটি বিশাল বহর নিয়ে শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে। শোভাযাত্রায় শ্রীকৃষ্ণের ব্যানার, ফেস্টুন, ব্যাণ্ডপার্টি, কাঁসর, বাদ্য বাজনা ও ছোট-বড় গাড়ি বিভিন্ন সাজে সজ্জিত হয়ে নারী-শিশুসহ বিভিন্ন বয়সী ভক্তবৃন্দ শোভাযাত্রায় অংশ নেন।

এদিকে দুপুরে  জন্মাষ্টমী উদযাপন পরিষদের আয়োজনে শহরের ট্রাংক রোডে শহীদ মিনারের পাদদেশে আলোচনা সভা শেষে শোভাযাত্রা বের করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক আবু সেলিম মাহমুদ-উল হাসান।

জন্মাষ্টমী উদযাপন পরিষদ ফেনীর সভাপতি এডভোকেট দিলীপ সাহার সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) থোয়াই অং প্রু মারমা।

এর আগে সকালে জন্মাষ্টমী উপলক্ষে প্রতি বছরের ন্যায় এবারও শ্রী শ্রী জগন্নাথ মন্দিরের পক্ষ থেকে আলোচনা সভা শেষে মঙ্গল শোভাযাত্রা উদ্ধোধন করেন ফেনী পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী।

বক্তারা বলেন, কারও ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দিয়ে কোনো কথা বলা ঠিক না। “যার ধর্ম সে পালন করবে এবং আমরা সেই চেতনায় বিশ্বাস করি। বর্ণ যাই থাকুক না কেন, কার মধ্যে কি শক্তি আছে সেটি আমরা জানি না। সৃষ্টিকর্তাই জানেন।”

হিন্দুধর্মমতে, ‘শ্রীকৃষ্ণ জন্ম নিয়েছিলেন অত্যাচারী রাজা কংসের কারাগারে। শ্রীকৃষ্ণ জন্মগ্রহণ করে বিশ্বকে শেকল ভাঙার কাহিনী শুনিয়ে গেছেন। মানুষের জন্য দিয়ে গেছেন মানবপ্রেমের অবিনশ্বর বাণী। সেটি এমন এক সময় যখন দুষ্টু লোকেরা ন্যায় নীতি ও সত্যকে প্রায় নষ্ট করে ফেলেছিল। ঠিক তখনি সৃষ্টের পালন আর দুষ্টের দমনের জন্য পৃথিবীতে এসেছিলেন।