পিরোজপুরের কাউখালী বন্দরের ইকো খালটি অবশেষে ফিরে পেল প্রাণ

55
পিরোজপুরের কাউখালী বন্দরের ইকো খালটি অবশেষে ফিরে পেল প্রাণ
পিরোজপুরের কাউখালী বন্দরের ইকো খালটি অবশেষে ফিরে পেল প্রাণ

এম এ মুন্না, পিরোজপুর থেকে: পিরোজপুরে কাউখালী উপজেলা কচা নদীর পূর্ব পার্শ্বে বন্দরের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া উত্তর—দক্ষিন মূখী ৬৫০ মিটার দৈর্ঘ্য ও ২৪ মিটার প্রস্থ প্রবাহমান খালটি অধিকাংশ স্থানে ভরাট করে সংকুচিত হওয়ায় খালটি আজ বৃহস্পতিবার সকালে বিএডিসি পিরোজপুর জোন এর বাস্তবায়নে খাল খনন শুরু হয়েছে।

এ সময় দুই পার্শে থাকা গাছপালা, অবৈধ স্থাপন উচ্ছেদ করা হয়। উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করেন কাউখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোছা. খালেদা খাতুন রেখা, সহকারী কমিশনার (ভূমি) জান্নাত আরা তিথি, বিএডিসি পিরোজপুরের সহকারী প্রকৌশলী জগন্নাথ বিশ্বাস, ওসি (তদন্ত) রেজাউল করিম রাজীব। কাউখালী বন্দরের গুরুত্বপূর্ণ এই খালটি বন্ধ থাকায় পয়:নিস্কান ও জলবদ্ধতার সৃষ্টি হতো।

হাটের দিনে বন্দর ঘেষা এই খালটিই ছিল নৌ যোগাযোগের একমাত্র মাধ্যম। আস্তে আস্তে বিভিন্ন বন্দোবস্ত ও দখলের মাধ্যমে সংকুচিত হয়ে ভরাট করা হয়। এ খালটি উদ্ধারের জন্য এলাকাবাসী মানববন্ধন, স্মারকলিপি প্রদানসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে আসছিলো। জনগণের সেই দাবীর প্রেক্ষিতে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের উদ্যোগে খালটি আবার প্রাণ ফিরে পেল। ৬৫০ মিটার দীর্ঘ ও ২৪ মিটর প্রস্থ ইকো খালের পূণ:খননের সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান আবু সাঈদ মিয়া মনু, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মনিরুজ্জামান তালুকদার পল্টন, সাবেক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ_সভাপতি কামরুজ্জামান মিঠু, সদর ইউপি চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমানসহ ও স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার খালেদা খাতুন রেখা বলেন, এলাকাবাসীর দীর্ঘ দিনের দাবীর প্রেক্ষিতে মাননীয় সংসদ সদস্য আনোয়ার হোসেন মঞ্জুর সহযোগিতায় খালটি পূণ: খননের কাজ শুরু হয়েছে। এ খালটিকে ঘিরে দুই পাশে দৃষ্টি নন্দন ওয়াকওয়ে, শিশুদের খেলার জায়গা, বয়স্কদের জন্য ব্যায়ামের জায়গা এবং সৌন্দর্য্য বন্ধর্ন করার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে।