​​​​​​​চকরিয়ার আলোচিত আমির হোসেন হত্যা মামলার আসামী গ্রেফতার

73

মো : শাহ আলম, চকরিয়া, কক্সবাজার প্রতিনিধি : চকরিয়ার চাঞ্চল্যকর আমির হোছন হত্যা মামলার ২নং আসামী আবদুর রহমানকে বৃহস্পতিবার (২৩জুন) ভোর রাতে চিংড়ী জোন এলাকার চরন্দ্বীপ থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত আসামী আবদুর রহমান (২৮) চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা ডুমখালী এলাকার ইউসুফের ছেলে।

জানাযায়, চকরিয়ায় গত ২৩ মে একটি বিচারের জন্য ডেকে এনে কুপিয়ে ও গুলি করে আমির হোসেন নামের এক ব্যক্তিকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ডুলাহাজারা ইউপি চেয়ারম্যান আদর ও মেম্বার সালাম ও আব্দুর রহমান গংয়ের বিরোদ্ধে। হত্যার সাথে সাথে বিক্ষুব্ধ গ্রামবাসী মালুমঘাট ষ্টেশনের দুই দোকানে হামলা-ভাংচুর চালায় নিহতের পক্ষ। উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে পরিস্থিতি সামাল দিতে পুলিশ ডেকে নিজেই মাইক হাতে নিয়ে বিক্ষুব্ধ গ্রামবাসীকে থামানোর চেষ্টা করেন স্থানীয় চেয়ারম্যান আদর। ২৩ মে ‘২২ সোমবার রাত ৮-১০ টায় এ ঘটনার ৪ দিন পর নিহতের স্ত্রী ছকিনা বাদী হয়ে ডুলাহাজারা ইউপি চেয়ারম্যান আদর ও মেম্বার আবু সালাম এবং রহমান সহ ১০ জনের নাম উল্লেখ করে ২২ জনের বিরোদ্ধে হত্যা মামলা রুজু করেন।

মামলার পরপরই খুনিদের বিচারের দাবীতে ডুলাহাজারা বাজারে মানববন্ধন করে ডুলাহাজারার জনসাধারন । অপরদিকে শনিবার চেয়ারম্যান আদরের স্ত্রীর নেতৃত্বে ডুলাহাজারা বাজারে মানববন্ধন করার চেষ্টা করলে গ্রামবাসীর প্রতিরোধের মুখে চকরিয়া পৌরসভার সিস্টেম মার্কেটের সামনে মানববন্ধন করে হোটেল কক্ষে সংবাদ সম্মেলন করে চেয়ারম্যানের স্ত্রী ও শশুরী।
মামলার এক নং আসামী ডুলাহাজারা ইউপি চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদর ইতিমধ্যে হাইকোর্ট থেকে জামিনে আসলে গ্রেফতার এড়াতে পলাতক হয় অন্যান্য আসামীরা।

এ বিষয়ে চকরিয়া থানার অফিসার ইনর্চাজ (ওসি) চন্দন কুমার চক্রবর্তী বলেন, আমির হোসেনকে নৃশংসভাবে হত্যাকান্ডের পলাতক খুনি আব্দুর রহমানকে অভিযান চালিয়ে বৃহস্পতিবার ভোরে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়। একই দিন ধৃত আসামীকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।