আইসিবি এর ৪৫তম বার্ষিক সাধারণ সভায় ১১% নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন

109
আইসিবি এর ৪৫তম বার্ষিক সাধারণ সভায় ১১% নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন
আইসিবি এর ৪৫তম বার্ষিক সাধারণ সভায় ১১% নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন

ইনভেস্টমেন্ট কর্পোরেশন অব বাংলাদেশ (আইসিবি) এর ৪৫তম বার্ষিক সাধারণ সভা ২৮ ডিসেম্বর, ২০২১ তারিখ, মঙ্গলবার, সকাল ১০:৩০ ঘটিকায় ডিজিটাল/ভার্চুয়াল প্লাটফর্মে অনুষ্ঠিত হয়। আইসিবি পরিচালনা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মোঃ কিসমাতুল আহসান এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সভায় আইসিবি’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব মোঃ আবুল হোসেন এবং অন্যান্য পরিচালকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় বিপুল সংখ্যক শেয়ারহোল্ডার ভার্চুয়ালী যুক্ত ছিলেন। বার্ষিক সাধারণ সভায় শেয়ারহোল্ডারগণ আইসিবি এবং এর সাবসিডিয়ারি কোম্পানিসমূহের ২০২০—২০২১ অর্থবছরের বার্ষিক প্রতিবেদন এবং নিরীক্ষিত হিসাব সম্পর্কে বিস্তারিত অবহিত হয়েছেন। কর্পোরেশনের অব্যাহত উন্নতির জন্য তাঁরা গভীর সন্তোষ প্রকাশ করেন।

২০২০—২০২১ অর্থবছরে আইসিবি এককভাবে এবং সাবসিডিয়ারিসহ সম্মিলিতভাবে যথাক্রমে ৯৫.২৭ কোটি টাকা এবং ১১৫.৩৩ কোটি টাকা নিট মুনাফা অর্জন করেছে। শেয়ারহোল্ডারগণ ২০২০—২০২১ অর্থবছরের জন্য ১১% নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন করেন। উল্লেখ্য, ২০১৯—২০২০ অর্থবছরে ৫% নগদ ও ৫% স্টক লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছিলো। ইতোপূর্বে ২০২০—২০২১ অর্থবছরের জন্য কর্পোরেশনের ব্যবস্থাপনায় পরিচালিত আইসিবি ইউনিট ফান্ড হতে সার্টিফিকেট প্রতি ৪২.০০ টাকা হারে লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছে যা যেকোনো মিউচ্যুয়াল ফান্ডের তুলনায় সর্বোচ্চ।

২০২০—২০২১ অর্থবছরে কর্পোরেশন পুঁজিবাজারে এ পর্যন্ত সর্বমোট ১৪০৩৯.৪৬ কোটি টাকা বিনিয়োগ করেছে। এছাড়া আলোচ্য অর্থবছরে কর্পোরেশন ১০০.০০ কোটি টাকার ১টি মিউচ্যুয়াল ফান্ড ইস্যুর ট্রাস্টি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছে। ২০২০—২০২১ অর্থবছরে কর্পোরেশন লভ্যাংশ, মার্জিন ঋণ, প্রকল্প ঋণসহ অন্যান্য ঋণ/অগ্রিম খাতে সর্বমোট ১১৫৬.৪২ কোটি টাকা আদায় করেছে।

আলোচ্য অর্থবছরে উভয় স্টক এক্সচেঞ্জ—এ আইসিবি এবং এর সাবসিডিয়ারি কোম্পানিসমূহের বিভিন্ন পোর্টফোলিওতে মোট লেনদেনের পরিমাণ ছিল ২০৭৪৪.৫৬ কোটি টাকা যা পূর্ববর্তী বছর ৯৬৬৪.৪৫ কোটি টাকার তুলনায় ১১৫.১৭ শতাংশ বেশি। শেয়ারবাজার বিপর্যয় পরবর্তী বিনিয়োগকারীদের আস্থা ফিরিয়ে আনা এবং বাজারের স্থিতিশীলতা বজায় রাখতে আইসিবি’র ভূমিকা শেয়ারহোল্ডারগণ কর্তৃক ব্যাপকভাবে প্রশংসিত হয়।

শেয়ারবাজারের গভীরতা, স্থিতিশীলতা, নির্ভরযোগ্যতা এবং তারল্য বজায় রাখার পাশাপাশি একটি সুদৃঢ় ও টেকসই পুঁজিবাজার গঠনে আইসিবি ও এর সাবসিডিয়ারি কোম্পানিসমূহ অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে বলে সভায় অভিমত ব্যক্ত করা হয়। সভায় আইসিবি এবং এর সাবসিডিয়ারি কোম্পানিসমূহের কর্মকর্তা—কর্মচারীদের নিরলস প্রচেষ্টা এবং উদ্যোগের জন্য ভূয়সী প্রশংসা করা হয় এবং ভবিষ্যতেও পুঁজিবাজারে আইসিবি’র ভূমিকা ও অবস্থান সুদৃঢ় থাকবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করা হয়।

আইসিবি’র পরিচালনা বোর্ডের চেয়ারম্যান ও আইসিবি’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক পুঁজিবাজারে আইসিবিকে অব্যাহত সমর্থন ও সহযোগিতার জন্য শেয়ারহোল্ডার, অর্থ মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ ব্যাংক, বিএসইসি, স্টক এক্সচেঞ্জসমূহ এবং সিডিবিএল সহ সকল স্টেকহোল্ডারগণের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।