Logo
বুধবার, ১৪ এপ্রিল, ২০২১ | ১লা বৈশাখ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

কলকাতায় বাংলাদেশি নায়িকারা

প্রকাশের সময়: ৫:০০ পূর্বাহ্ণ - বৃহস্পতিবার | সেপ্টেম্বর ২৯, ২০১৬

ঢাকাই চলচ্চিত্রের নায়িকা অঞ্জু ঘোষ, রোজিনার মতো নায়িকারা কলকাতায় সুপারহিট সিনেমায় অভিনয় করেছেন অনেক আগেই। মাঝে বেশ কয়েক বছর কোনো নায়িকা কলকাতার ছবিতে অভিনয় করেননি।

তবে সাম্প্রতিক সময়ে যৌথ প্রয়োজনা এবং কলকাতার ছবিতে অভিনয় করছেন বাংলাদেশের শীর্ষ নায়িকারা। আর এসব নায়িকাদের সেখানে উপস্থিতি ‘সাহসী’ ইমেজ নিয়েই।

রোজিনা: ১৯৭৬ সালে বাংলা চলচ্চিত্রে অভিষেক হয় নায়িকা রোজিনার। লম্বা ক্যারিয়ারে তিনি দেড় শতাধিক ছবিতে অভিনয় করেছেন। জনপ্রিয়তা পাওয়া রোজিনা প্রায় আটবছর পর ১৯৮৪ সালে বাংলাদেশ-ভারত যৌথ প্রযোজনার ছবিতে কাজ করার সুযোগ পান। বোম্বের সুপারস্টার মিঠুন চক্রবর্তীর বিপরীতে ‘অন্যায় অবিচার’ সিনেমায় রোজিনা অভিনয় করেন। দু’বাংলার সুপারহিট এ সিনেমাটি পরিচালনা করেন পরিচালক হাসান ইমাম ও শক্তি সামন্ত।

কুসুম সিকদার: মডেল ও নাটক দিয়ে মিডিয়ায় অভিষেক হয় কুসুম সিকদারের। ২০১০ সালে ‘গহীনে শব্দ’ ছবির মধ্য দিয়ে তার চলচ্চিত্রের যাত্রা শুরু হয়। ইমপ্রেস টেলিফিল্মের প্রযোজনায় খালিদ মাহমুদ মিঠুর পরিচালনা ছবিটি দারুণ সফল এবং প্রশংসিত হয়। প্রায় ছ’বছর পর বাংলাদেশ-ভারত যৌথ প্রযোজনার ছবি ‘শঙ্খচিল’ সিনেমায় অভিনয়ের সুযোগ পান কুসুম। গৌতম ঘোষের পরিচালনায় ‘শঙ্খচিল’ সিনেমা প্রসেনজিতের বিপরীতে অভিনয় করেন কুসুম। বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তের এক জনপদের গল্পের ওপর নির্মিত ছবিটি বাংলাদেশ ও ব্যাপক আলোড়ন তুলেছিল।

সোহানা সাবা: সোহানা সাবা ছোট পর্দা দিয়েও অভিনয় শুরু করলে বড় পর্দায় এখন তিনি সফল নায়িকা। মুরাদ পারভেজ নির্মিত ‘বৃহন্নলা’ ও ‘চন্দ্রকথা’ ছবিতে অভিনয় করেন সাবা। ক্যারিয়ারে দীর্ঘ সময় পর ২০১৬ সালে কলকাতা ছবিতে অভিনয় করার সুযোগ পান সাবা।

পরিচালক অয়ন চক্রবর্তীর ‘ষড়রিপুতে’ অভিনয় করেন এ অভিনেত্রী। রোমান্টিক ও থ্রিলারধর্মী এ ছবিতে সাবা কলকাতার  ইন্দ্রনীল সেনগুপ্ত, চিরঞ্জিত চক্রবর্তী, রজতাভ দত্ত’র মতো নামী-দামী শিল্পীদের সঙ্গে অভিনয় করেন তিনি।

জয়া আহসান: ছোট পর্দায় ও বড় পর্দায় সফল অভিনেত্রী জয়া আহসান। নাসির উদ্দীন ইউসুফ পরিচালিত সৈয়দ শামসুল হক’র ‘নিষিদ্ধ লোবান’ উপন্যাস অবলম্বনে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের পটভূমিতে নির্মিত ‘গেরিলা’ চলচ্চিত্রের জন্য ২০১১ সালে সেরা অভিনেত্রী খেতাব জয়ী জয়া আহসান। বাংলাদেশে সিনেমার পাশাপাশি বর্তমানে কলকাতার সিনেমায় সমান তালে কাজ করছেন তিনি।

২০১৫ সালে কলকাতার নামকরা পরিচালক সৃজিত মুখার্জির পরিচালনায় ‘রাজকাহিনীতে’ অভিনয় করার সুযোগ পান জয়া। ছবিটির জন্য এ অভিনেত্রী কলকাতায় দারুণ প্রশংসিত হন। এর পরিপ্রেক্ষিতে সম্প্রতি কলকাতায় মুক্তি পেয়েছে তার অভিনীত সিনেমা ‘ঈগলের চোখ’।

নুসরাত ফারিয়া: রেডিও আরজে এবং পরবর্তীতে টেলিভিশনে উপস্থাপিকা দিয়ে মিডিয়ায় যাত্রা শুরু করলেও নুসরাত ফারিয়া এখন সফল নায়িকা। নুসরাত ফারিয়ার সিনেমা ক্যারিয়ার শুরু বাংলাদেশ-ভারত যৌথ প্রযোজনার ছবি ‘আশিকী’ দিয়ে। আব্দুল আজিজ ও অশোক পতির পরিচালনার এ ছবিটি সফল হওয়ার পর।

যৌথ প্রযোজনার আরেকটি ছবি ‘হিরো ৪২০’ সিনেমায় অভিনয় করেন নুসরাত ফারিয়া। এর ধারাবাহিকতায় এবারের রোজা ঈদের যৌথ প্রযোজনার ‘বাদশা’ ছবিতে কলকাতার হিরো জিতের বিপরীতে অভিনয় করেন এ অভিনেত্রী। ছবিটি এবারের ঈদের সুপারহিট ছবি।

মাহিয়া মাহি: বড়পর্দা দিয়ে ঢাকাই চলচ্চিত্রে অভিষেক হয় নায়িকা মাহিয়া মাহির। ২০১২ সালে জাজ মাল্টিমিডিয়ার ‘ভালোবাসার রং’ ছবির মধ্য মাহিয়া মাহির চলচ্চিত্রে আসা। এরপর বেশ কয়েকটি সুপারহিট ছবিতে অভিনয় করেন তিনি।

‘অগ্নি’ ও ‘অগ্নি টু’ সিনেমার জন্য বেশ প্রশংসিত হয়েছেন এ নায়িকা। ক্যারিয়ারের তিন বছরের মাথায় বাংলাদেশ-ভারত যৌথ প্রযোজনার সিনেমা ‘রোমিও বনাম জুলিয়েট’এ অভিনয় করেন তিনি। ছবিটি দু’বাংলাতে সুপারহিট হয়।

Read previous post:
চুল রাঙাবেন না, কিন্তু কেন ?

তৃতীয় মাত্রা: লাইফস্টাইল ডেস্ক: হাল ফ্যাশনে চুলে রং করা বেশ জনপ্রিয়। তবে রং মানেই কেমিকল। তাই কিছু ক্ষেত্রে ফ্যাশনের বদলে...

Close

উপরে