Logo
রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯ | ৩রা ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

১০ বছর পর পাকিস্তানের মাটিতে ফিরছে টেস্ট ক্রিকেট!

প্রকাশের সময়: ১০:৪৩ পূর্বাহ্ণ - শনিবার | এপ্রিল ১৩, ২০১৯

তৃতীয় মাত্রা :

পাকিস্তানের মাটিতে সর্বশেষ টেস্ট খেলেছিল শ্রীলঙ্কাই, তাও প্রায় ১০ বছর। সেবার টিম বাসে সন্ত্রাসী হামলার জেরে সিরিজ বাতিল করে দেশে ফিরে যায় শ্রীলঙ্কা দল। এরপর থেকে পাকিস্তানের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট বয়কট করে আসছে প্রায় সব দল। তবে এতদিন পর ফের টেস্ট ক্রিকেটের স্বাদ পেতে যাচ্ছে পাকিস্তানের ক্রিকেটভক্তরা। অবাক করা বিষয় হলো এবারও প্রতিপক্ষ দলের নাম শ্রীলঙ্কা!

শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের (এসএলসি) সঙ্গে সম্ভাব্য দুই টেস্ট ম্যাচ আয়োজনের ব্যাপারে কথা অনেকটাই এগিয়ে নিয়ে গেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। এক রিপোর্টে একমনটাই দাবি করেছে পাকিস্তানের একাধিক সংবাদ মাধ্যম।

দুই বোর্ডের মধ্যে আলোচনা এখনও চূড়ান্ত হয়নি। তবে পাকিস্তানি মিডিয়ার দাবি, শ্রীলঙ্কা নাকি পিসিবিকে সবুজ সংকেত দিতে চলেছে। যদি দুই পক্ষ একমত হয় তাহলে দুই টেস্টের ভেন্যু হবে করাচি ও লাহোর।

সম্ভাব্য দুই টেস্ট ম্যাচ হবে মূলত আইসিসি’র নতুন টুর্নামেন্ট ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ। চলতি বছরের জুলাইয়ে মাঠে গড়াবে এই চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম আসর। ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে ২০২১ সালের জুনে।

টেস্ট খেলুড়ে ১২ দল থাকলেও টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে খেলতে পারবে শুধু শীর্ষ ৯ দল। অর্থাৎ, জিম্বাবুয়েসহ নতুন স্ট্যাটাস পাওয়া আফগানিস্তান ও আয়ারল্যান্ড অংশ নিতে পারছে না প্রথম আসরে।

আজ থেকে প্রায় ১০ বছর আগে লাহোরে শ্রীলঙ্কার টিম বাসে সন্ত্রাসী হামলা হয়েছিল। এই হামলায় শ্রীলঙ্কা দলের কয়েকজন ক্রিকেটার আহত হয়েছিলেন। এই ঘটনার প্রেক্ষিতেই পাকিস্তানের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলা বন্ধ হয়ে যায়।

ঘরের মাটিতে ম্যাচ আয়োজন করতে না পারায় সংযুক্ত আরব আমিরাতকে হোম ভেন্যু বানাতে বাধ্য হয় পাকিস্তান। যদিও পরে জিম্বাবুয়ে ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ দল পাকিস্তান সফরে গিয়েছিল, কিন্তু সেগুলো আন্তর্জাতিক অঙ্গনে সাড়া ফেলতে পারেনি। নিরাপত্তার অভাবের কারণে ভারত, অস্ট্রেলিয়া ও বাংলাদেশ সহ প্রায় সব ক্রিকেট খেলুড়ে দেশ পাকিস্তানের মাটিতে ক্রিকেট খেলা নিজেদের বিরত রেখেছে।

লাহোর হামলার প্রায় ৬ বছর পর ২০১৫ সালে ১টি ওয়ানডে ও ২টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলতে পাকিস্তান সফরে গিয়েছিল জিম্বাবুয়ে। এরপর ২০১৭ সালের অক্টোবরে একমাত্র টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলতে পাকিস্তানে যায় ক্যারিবিয়ানরা। ২০১৮ সালের এপ্রিলে ৩ টি-টোয়েন্টির সিরিজ খেলতে ফের ক্যারিবীয়রা পাকিস্তান সফরে যায়।

তবে পাকিস্তানের আশার পালে হাওয়া লাগিয়েছে পাকিস্তান সুপার লিগ (পিএসএল)। এই ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক লিগের দ্বিতীয় আসরের কয়েকটি ম্যাচ আর এবারের আসরের ফাইনাল ম্যাচে বিদেশি তারকা ক্রিকেটারদের উপস্থিতি পরিস্থিতি কিছুটা পাল্টে দিয়েছে।

Read previous post:
কোহলিদের বাঁচাতে আসছেন স্টেইন

তৃতীয় মাত্রা : গুঞ্জনই তবে সত্যি হতে যাচ্ছে? সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রামে ভারতীয় ভিসা সম্বলিত নিজের পাসপোর্টের ছবি প্রকাশ করেছিলেন ডেল...

Close

উপরে