Logo
সোমবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮ | ২৬শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

৭ দফা দাবি বাস্তাবায়নে ট্রাক শ্রমিকদের কর্মবিরতির ঘোষণা

প্রকাশের সময়: ৫:৪৮ অপরাহ্ণ - শনিবার | সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৮

 

স্বার্থ পরিপন্থী ধারা-উপধারা সংশোধন, সব প্রকার হয়রানি বন্ধসহ ৭ দফা দাবি বাস্তাবায়নে উত্তরবঙ্গ ট্রাক ট্যাংকলরি কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ আন্দোলন বাস্তবায়ন কমিটি আগামী ১৫ অক্টোবর থেকে উত্তরাঞ্চলের ১৬ জেলায় কর্মবিরতির ঘোষণা দিয়েছে।

একইসঙ্গে এই সংগঠনের নেতারা হুমকি দিয়ে বলেছেন, সাত দফা দাবি দ্রুত বাস্তবায়ন না হলে কর্মবিরতির পর বৃহৎ অসহযোগ আন্দোলনের ডাক দেয়া হবে।

শনিবার বগুড়া শহরের একটি পাঁচ তারকা হোটেলে উত্তরবঙ্গ ট্রাক ট্যাংকলরি কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ আন্দোলন বাস্তবায়ন কমিটি মতবিনিময় সভা থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়।

সভায় সভাপতিত্ব করেন উত্তরবঙ্গ ট্রাক ট্যাংকলরি কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ আন্দোলন বাস্তবায়ন কমিটির আহ্বায়ক আব্দুল মান্নান আকন্দ।

তিনি মতবিনিময় সভার শুরুতে জাতীয় সংসদে সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮ পাস হওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। একইসঙ্গে তিনি বলেন, পরিবহন খাত থেকে সারাদেশে প্রতি বছর প্রায় ৫ হাজার কোটি টাকা রাজস্ব পায় সরকার। এই বিশাল অংকের রাজস্ব প্রদান করার পরও ট্রাক ট্যাংকলরি কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকরা অবহেলিত। ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি নির্বাচনের সময় ট্রাক মালিক শ্রমিকরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মালামাল পরিবহন করেছে। সে সময় ৯২ জন চালক ও চার হাজার শ্রমিক আহত হন। দেশের স্বার্থে এত বড় ঝুঁকি নিলেও আজ ট্রাক শ্রমিক মালিকদের দিকে কেউ দেখছে না। তাদের ওপর শুধু নিয়মের বোঝা চাপানো হচ্ছে। আর এই বোঝা নিয়ে শ্রমিক, মালিকরা আজ পথে বসতে শুরু করেছে।

সভায় বলা হয়, তারা নিজেদের স্বার্থ সংরক্ষণে ৭ দফা দাবি জানাচ্ছে। দাবিগুলো হলো- ট্রাক ট্যাংকলরি, কাভার্ডভ্যান ও পিকআপের ট্যাক্স টোকেন, ফিটনেস, রুট পারমিটসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র নবায়নে জরিমানা মওকুফ করে ৩১ ডিসেম্বর ২০১৮ পর্যন্ত সময়সীমা নির্ধারণ করে দেয়া, গাড়ির প্রয়োজনীয় কাগজপত্র যত্রতত্র চেকিং না করে নির্দিষ্ট স্থানে চেকিং করা, পণ্যবাহী গাড়ির জরিমানার অর্থ সরাসরি চালানের মাধ্যমে ব্যাংকে জমা দেয়ার ব্যবস্থা করা, বিভিন্ন স্থানে স্থাপিত ওজন নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্র মালিক সমিতির তত্ত্বাবধানে পরিচালনা করা, সড়কে অবৈধ যান চলাচল বন্ধ করা, সড়ক-মহাসড়কে জেলা পুলিশ ও হাইওয়ে পুলিশের সহযোগিতায় নিরাপত্তার বিষয়টি নিশ্চিত করা এবং স্বার্থ পরিপন্থী ধারা-উপধারা সংশোধন করে সব প্রকার হয়রানি বন্ধ করা।

সভায় বলা হয়, এসব দাবি বাস্তবায়নে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ না করা হলে আগামী ১৫ অক্টোবর থেকে উত্তরবঙ্গে ট্রাক ট্যাংকলরি কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিক কর্মবিরতিতে গিয়ে আন্দোলনের ডাক দেবে।

এ সময় বক্তব্য রাখেন- বগুড়া ট্রাক ট্যাংকলরি কাভার্ডভ্যান মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মতিন সরকার, রাজশাহীর সাদরুল ইসলাম, সিরাজগঞ্জের রেজাউন খান, নামদার হোসেন, গাইবান্ধার রোস্তম আলী, বগুড়ার খোরশেদ আলম, আব্দুল মান্নান মন্ডল, পাবনার মোজাম্মেল হক কবির, রবিউন নবী, শহিদুল ইসলাম, দিনাজপুরের সাদাকাতুল বারী, নাটোরের মোস্তারুল ইসলাম আলম, তপন সরকার তপো, চাপাইনবাবগঞ্জের অধ্যাপক আমিনুল ইসলাম সেন্টু ও নওগাঁর শফিকুল ইসলাম।

Read previous post:
ইরানের হামলায় নিহত বেড়ে ২৪

  ইরানের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের আহভাজ শহরে সামরিক কুচকাওয়াজে বন্দুক হামলায় দেশটির বিপ্লবী বাহিনীর ১১ সদস্যসহ অন্তত ২৪ জন নিহত হয়েছেন। শনিবার...

Close

উপরে