Logo
শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০২১ | ৯ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

প্রধানমন্ত্রীর সাথে সৌজন্যে সাক্ষাৎ করেন নাজিব তুন রাজ্জাক

প্রকাশের সময়: ১১:৩২ পূর্বাহ্ণ - বুধবার | সেপ্টেম্বর ৮, ২০২১

তৃতীয় মাত্রা

এম এ আবির, মালয়েশিয়া প্রতিনিধি, গতকাল মালয়েশিয়ার সাবেক প্রধানমন্ত্রী দাতু সেরি নাজিব তুন রাজ্জাক বর্তমান প্রধানমন্ত্রী দাতু সেরি ইসমাইল সাবরি ইয়াকুবের সাথে সৌজন্যে সাক্ষাৎ করেন। সাক্ষাৎতে ঘন্টাব্যাপী চলে এই বৈঠক। বৈঠকে বৈশ্বিক মহামারি কোভিড-১৯ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কৌশলসহ দেশি বিদেশি অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা নিয়ে আলোচনা হয়।

প্রধানমন্ত্রী ইসমাইল সাবরি ইয়াকুব বলেন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী নাজিব তুন রাজ্জাক একটি দলের প্রধান হিসাবে নয়, প্রিয় মালয়েশিয়ানদের স্বার্থে একসঙ্গে থাকার শক্তি সময় এবং ধারণা প্রদানে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

উল্লেখ, নাজিব তুন রাজ্জাক ২০০৮ সালে অর্থমন্ত্রী ছিলেন এবং ২০০৯ সাল থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত তিনি বারিসান ন্যাশনাল দলের হয়ে প্রধানমন্ত্রী দায়িত্ব পালন করেন। সাধারণ নির্বাচনে হেরে যাওয়ার পর নাজিবের বিরুদ্ধে প্রশাসন 1 MDB অর্থ কেলেঙ্কারির মামলা হয়। তিনি বর্তমানে দূর্নীতি বিচারের মুখোমুখি আছেন। নাজিব অবশ্যই দোষ স্বীকার করেনি। আদালত তাকে দোষী সাব্যস্ত করেন।

প্রধানমন্ত্রীর সাথে সাক্ষাৎতের পর নাজিব তুন রাজ্জাক ওনার ভেরিফাই অফিসিয়াল পেইজে লিখেন, আমার নীতি এবং অবস্থান পরিষ্কার। যদি উন্নতির সুযোগ থাকে, আমি এটি সুপারিশ করি। যদি আমি ভুল করি, আমি এর বিরুদ্ধে। ভালো হলে আমি সমর্থন করি মুখোমুখি বা সোশ্যাল মিডিয়ায়।
পদ্ধতিটি তাদের উপর নির্ভর করে যারা মানুষের কণ্ঠস্বর বুঝতে এবং শুনতে ইচ্ছুক।

আলহামদুলিল্লাহ, আজ আমি মালয়েশিয়ার অর্থনীতির বর্তমান অবস্থা এবং পরবর্তী করণীয় সম্পর্কে আলোচনা করতে ইয়াব প্রধানমন্ত্রীর সাথে সাক্ষাৎ করেছি। মালয়েশিয়া এখনো সংকটে আছে। প্রকৃতপক্ষে এটি অর্থনীতি আয় এবং মানুষের কল্যাণের ক্ষেত্রে বৃহত্তর চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হবে। সামগ্রিক দৃষ্টিকোণ থেকে এবং সামগ্রিকভাবে, আমরা আমাদের প্রতিবেশী দেশের তুলনায় ইতিমধ্যে অনেক পিছিয়ে আছি।

২০১৮ সালের পর বিদেশিদের কাছে মালয়েশিয়ায় বিনিয়োগের আগ্রহ কমে গিয়েছে। ক্ষুদ্র দৃষ্টিকোণ থেকে এবং জনগণকে সম্পৃক্ত করে, আমাদের অর্থনীতির প্রতি অনেকের আস্থা নেই। আসলে, প্রত্যেকের চাহিদা, আয় এবং চাকরির স্থায়িত্ব নিয়ে উদ্বেগ রয়েছে।

সাধারণভাবে, এটাই আমি সেই সকলকে জানাই যারা মতামত শুনতে এবং গ্রহণ করতে ইচ্ছুক।
উপলব্ধ পরামর্শ, কৌশল এবং অভিজ্ঞতার সুবিধা নেওয়ার আশা করি। এখন সময় এসেছে জনগণের এগিয়ে আসার এবং অর্জনের আগে আসার।

আমাদের আবার ব্যর্থ হওয়ার সামর্থ্য নেই।মালয়েশিয়ান পরিবারের স্বার্থে।

এম এ আবির

Read previous post:
এবার আর্জেন্টিনা শিবিরে করোনার হানা

তৃতীয় মাত্রা বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচ খেলতে ব্রাজিলে বেশ ঝামেলার মধ্যেই পড়েছিল আর্জেন্টিনা ফুটবল দল। সেই ঝামেলার সমাধান হয়নি এখনও। এরই...

Close

উপরে