Logo
শুক্রবার, ২৪ জানুয়ারি, ২০২০ | ১১ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের বড় ধর্মীয় উৎসব ‘বড়দিন’ কাল

প্রকাশের সময়: ৩:৪০ অপরাহ্ণ - মঙ্গলবার | ডিসেম্বর ২৪, ২০১৯

তৃতীয় মাত্রা

খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব ‘বড়দিন’ কাল। চার্চগুলোতে চলছে শেষ সময়ের প্রস্তুতি। সান্তা ক্লজ, ক্রিসমাস ট্রি, ফুল, কেক, কার্ড আর নানা আয়োজনে এখন উৎসবমুখর ব্যস্ততা। বড়দিনের আনন্দ সবার সাথে ভাগ করে নিতে উৎসব উদযাপনের প্রহর গুনছেন খ্রীস্ট ধর্মাবলম্বীরা।
ক্রিসমাস ট্রি তৈরি হয়েছে, গোশালা তৈরীর কাজও শেষ, এখন শুধু ক্ষণ গণনা। কখন আসবে সেই প্রহর। খ্রিষ্ট ধর্মাবলম্বি সব বাড়িতেই এখন সাজ সাজ রব। মানুষকে পাপের বোঝা থেকে মুক্তি দিতে বড়দিনে জন্ম নিয়েছিলেন খ্রীস্ট ধর্মের প্রবর্তক যীশু খ্রিস্ট। তাই এই দিনটিকে বর্ণিল আয়োজনে উদযাপন করতে নানা অনুষঙ্গ নিয়ে চলছে শেষ সময়ের প্রস্তুতি।

আধুনিকতার ছোঁয়ায় পরিবর্তন এসেছে উৎসব পালনের ক্ষেত্রেও। বেশ ক’ বছর আগে বড় দিন পালনের প্রায় সব উপকরণই বাসায় তৈরি করা হতো। এখন সেই পসরা নিয়ে বসে নানা দোকা আর বুটিকশপ। সেখানে মেলে বড় দিনের আকর্ষণীয় ক্রিসমাস ট্রি, স্টার, নানাধরণের লাইট, কেক, পিঠা, সবই।

বড়দিন উপলক্ষে নানা আয়োজনে প্রস্তুত রাজধানীর অভিজাত হোটেলগুলোও। ছোট বড় সবার জন্যই থাকছে বিভিন্ন আয়োজন। ক্রেতাদের আকর্ষণের জন্য নিত্য নতুন উপকরণে সাজানো হয়েছে হোটেলগুলো। বিশেষ মেন্যু থাকছে লাঞ্চ এবং ডিনারে।

২৫শে ডিসেম্বর বড় দিন হলেও এর আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয় ন’ দিন আগেই। আধ্যাত্মিক পরিশুদ্ধির মধ্য দিয়ে এই দিনগুলোতে প্রার্থনা করেন ভক্তরা। এরই মধ্যে ধুয়ে মুছে পরিস্কার করা হয়েছে রাজধানীর চার্চগুলো। সাজানো হয়েছে রং বেরঙের কাপড়, কাগজ এবং বাহারি আলোয়।

প্রভু যীশুর আলোকছটায় সবার জীবনই যেন পরিচ্ছন হয়, সেই আকাঙ্খাই থাকছে উৎসবের সবটা জুড়ে। বিশ্বজুড়ে হিংসা-বিদ্বেষের জায়গায় স্থান করে নিক শান্তির বার্তা, বড়দিনের উৎসবের এই সময়ে এমনটাই প্রত্যাশা খ্রীস্ট ধর্মাবলম্বীদের।

 

Read previous post:
খালেদার স্বাস্থ্য পরিস্থিতি জানতে দেয়া হচ্ছে না: রিজভী

তৃতীয় মাত্রা ডেস্ক রিপোর্ট : বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, বিএনপির চেয়ারপারসন কারাবন্দি বেগম খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য...

Close

উপরে